ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০

নতুন জীবন ফিরে পেয়েছেন টিভি  অভিনেত্রী মিস্টি মারিয়া 

বিভাগ : বিনোদন প্রকাশের সময় :২১ অক্টোবর, ২০২০ ১:৩৬ : অপরাহ্ণ

এম রাসেল আহমেদ :   
 অবশেষে চোখের দৃষ্টিশক্তি ফিরে পেলেন জনপ্রিয়  মডেল ও টিভি  অভিনেত্রী মিষ্টি মারিয়া। চোখে দেখতে পারছেন না এমন খবর ছড়িয়ে পড়ে নেট দুনিয়ায়। ভক্তরা চিন্তায় পরে যায় প্রিয় অভিনেত্রীর এই খবর শুনে, অনেকেই তাকে ফোন করেছেন, খবর জানতে চেয়েছেন তাদের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। বায়ান্ন নিউজ  প্রতিবেদক ও প্রঃ সহঃ পরিচালক ( যে নাটকে দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছেন)   কে   জানিয়েছেন বিষটি।   শুটিংয়ে গিয়ে চরিত্রের প্রয়োজনে চোখে কনট্যাক্ট লেন্স পড়তে হয়েছিল তাকে। লেন্স খোলার পর থেকেই তিনি চোখে দেখতে পারছিলেন না।
নিজের দৃষ্টিশক্তি ফিরে পাওয়ার প্রতিক্রিয়ায় মিষ্টি মারিয়া বলেন, মহান আল্লাহ আমাকে নতুন  জীবন দান করেছেন  । দৃষ্টিশক্তি হারাতে হারাতে বেচে গেছি, এই কয়টা দিন আমার উপলব্ধি হয়েছে – অন্ধ মানুষ বেঁচে থেকেও যেন  মৃত। পৃথিবী কত সুন্দর তা আবার দুচোখ দিয়ে দেখতে পাচ্ছি। আল্লাহর কাছে চোখের শুকরিয়া।      আমার নিজেকে  মৃত মনে হয়েছে কয়েকদিন । আমি সত্যিই মনে করছি – এটা আমার নতুন জীবন। পরিচালক আসাদ রহমানের  কয়েকটি বিশেষ   নাটকে অভিনয় করতে তিনি  উত্তরবঙ্গের জয়পুরহাট গিয়েছিলেন। সেখানে তিনি ওই নাটকের শুটিংয়ের সময় চোখে ফ্রেশ লুক কোম্পানির এক জোড়া কনট্যাক্ট লেন্স পড়ে নাটকের শুটিং করেন। গেলো ১২ অক্টোবর শুটিং শেষে মিষ্টি মারিয়া লেন্স খোলার পর থেকে চোখে দেখতে পারছিলেন না। তিনি জরুরী ভিত্তিতে জয়পুরহাট মিশন হাস্পাতালে 
প্রাথমিক চিকিৎসা নেন পরে  ওই রাতে ট্রেনে করে জয়পুরহাট থেকে ঢাকা ফিরে আসেন। ইসলামিয়া চক্ষু হাসপাতালে চোখের চিকিৎসা করান তিনি। এখন তিনি চক্ষু বিশেষজ্ঞ ডা: এ এস এম মইন উদ্দিনের তত্ত্বাবধানে চোখের চিকিৎসা করাচ্ছেন বলে জানান।
চোখের দৃষ্টিশক্তি ফিরে এসেছে মিষ্টি মারিয়ার
চোখের বর্তমান অবস্থা জানতে চাইলে মিষ্টি মারিয়া বলেন, ওই সময় ডাক্তার বলেছিলেন, লেন্স খোলার সময় হয়তো আমার চোখের কর্ণিয়ার ফার্স্ট লেয়ার ফেটে গিয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এই কারণে দেখতে পাচ্ছিলাম না। আমি চোখও মেলতে পারিনি তখন। ডাক্তার তখন আরও বলেছিলেন, এসব ক্ষেত্রে সাধারণত চব্বিশ ঘণ্টার মধ্যে লেয়ার তৈরি হয়ে যায়। কিন্তু আমার চোখ ঠিক হতে একটু বেশি সময় নিয়েছে। ডাক্তার বলেছিলেন, আমি সাতদিন চোখ খুলতে পারবো না। চিকিৎসা ও ওষুধের মাধ্যমে এটা ঠিক হয়ে যাবে। গেলো শনিবার ডাক্তার চোখ দেখে বলেছেন, আমার চোখ সুস্থ হওয়ার পথে। আগামী শনিবার পর্যন্ত আমি চোখে পানি লাগাতে পারবো না। ওই দিন চোখ দেখে ডাক্তার বলতে পারবেন আমাকে আরও বিশ্রামে থাকতে হবে কী না। 
মিষ্টি মারিয়া তার দর্শক – ভক্ত এবং পরিচিত শুভাকাঙ্ক্ষী ও সহকর্মী ও সাংবাদিকদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে বলেছেন, জীবনে আমি কখনো কারও উপকার ছাড়া ক্ষতি করিনি। আমার কঠিন সময়ে আপনাদের সবার দোয়া  ভালবাসায়  আমি চোখে দেখতে পারছি। প্লিজ আপনারা আমার জন্যে দোয়া করবেন – আমি যেন  খুব শীঘ্রি পুরোপুরি সুস্থ হয়ে ওঠতে পারি।

Print Friendly and PDF

ফেইসবুকে আমরা